1. dailyamarkothabd@gmail.com : admin :
  2. hmhabibullah2000@gmail.com : Habib :
  3. sabbirmamun402@gmail.com : Sabbir :
উন্নত জাতের ধানকর্তন ও মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত - দৈনিক আমার কথা
বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১১:২৫ অপরাহ্ন
বুধবার, ২৯ মে ২০২৪, ১১:২৫ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
সাতক্ষীরায় দুই উপজেলা বাবু ও লাল্টু জয়ী নকলা পল্লী বিদ্যুতের তারে জড়িয়ে একই পরিবারের ২ জনের মৃ’ত্যু ঘূর্ণিঝড় রিমাল : দুর্গত মানুষের বাড়ি বাড়ি খাবার পৌছে দিলো ইউএনও রাঙ্গামাটির রাজস্থলীতে কারিতাসের উদ্যোগে সামাজিক সুরক্ষায় প্রবেশাধিকার বিষয়ক সেমিনার অনুষ্ঠিত নড়াইলে সড়কের পাশ থেকে বৃদ্ধার মরাদেহ উদ্ধার। নির্মাণাধীন সীমান্ত সড়কে গাড়ি দুর্ঘটনায় আবারো ঝরলো ১টি প্রাণ; আহত ২ নদীতে ভাসছিল নবজাতকের লাশ আমেরিকার শিক্ষার্থীদের প্রতি সংহতি প্রকাশ করে ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন নিখোঁজ নারীর অর্ধ গলিত লাশ মিলল শোয়ার ঘরে নকলা পৌরসভার ২০২৪-২০২৫ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট সংক্রান্ত সভা অনুষ্ঠিত

উন্নত জাতের ধানকর্তন ও মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত

নড়াইল জেলা প্রতিনিধি
  • প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ৩০ এপ্রিল, ২০২৪
নড়াইলে উন্নত জাতের ধানকর্তন ও মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত

 নড়াইল সদরের গোবরা এলাকায় উন্নত জাতের ব্রি ধান-১০২ কর্তন ও মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার (৩০ এপ্রিল) গোবরা গ্রামের কৃষক বাদশা মোল্যার বাড়ির আঙিনায় মাঠ দিবসের আয়োজন করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর নড়াইলের উপ-পরিচালক আশেক পারভেজ। ফিড দ্যা ফিউচার বাংলাদেশ ক্লাইমেট স্মার্ট এগ্রিকালচার এক্টিভিটি (সিএসএ) প্রকল্পের উদ্যোগে অনুষ্ঠিত মাঠ দিবসে আরো উপস্থিত ছিলেন- বাস্তবায়নকারী প্রতিষ্ঠান আন্তর্জাতিক সার উন্নয়ন সংস্থার (আইএফডিসির) ফিল্ড সুপারভাইজার শরিফুল আলম মনি, কমিউনিটি অফিসার ফারজানা সুলতানা, উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তা রিপন গাইন, কৃষক বাদশা মোল্যাসহ এলাকার কৃষক-কৃষাণীরা। আইএফডিসির ফিল্ড সুপারভাইজার শরিফুল আলম মনি বলেন, ব্রি-১০২ জাতের ফলন যেমন বেশি, তেমনি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সম্পন্ন।

 

 

এই জাতের ধান জিংক সমৃদ্ধ। ডায়রিয়া প্রতিরোধসহ রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। নারীদের ঋতুস্রাবজনিত শারীরিক ঘাটতি দুর করে। ব্রি-১০২ জাতের ধানে ইউরিয়া সারের ব্যবহার একেবারেই কম। যেখানে আমরা তিন কেজি সার ব্যবহার করেছি, সেক্ষেত্রে কৃষক ব্যবহার করেছেন ছয় কেজি ইউরিয়া সার। একই জমিতে উন্নত জাতের ব্রি-১০২ ধান এবং কৃষকের রড মিনিকেট জাত লাগিয়ে ফলনের পার্থক্যও বোঝানো হয়েছে। এক্ষেত্রে ব্রি-১০২ জাতের ধানে হেক্টরপ্রতি সাড়ে নয় টন ফলন হচ্ছে। আর কৃষকদের লাগানো জাতে সাড়ে সাত টনের বেশি ফলন হয় না। মাঠ দিবসের মাধ্যমে ব্রি-১০২ জাতের ধান এবং কৃষকদের ইচ্ছেমতো লাগানো জাতের পার্থক্য বোঝানো হয়েছে। এক্ষেত্রে উন্নত জাতের ব্রি-১০২ ধানের মাধ্যমে কৃষক যথেষ্ট উপকৃত হয়েছেন। এলাকার কৃষকরাও আমাদের এমনটি জানিয়েছেন। আমাদের এই কাজে সহযোগিতা করছে- কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর নড়াইলের কর্মকর্তারা।

Facebook Comments Box

Please Share This Post in Your Social Media

এ জাতীয় আরও খবর